সূরা হাশরের শেষ তিন আয়াতের ফজিলত


সূরা হাশরের শেষ তিন আয়াতের ফজিলত নিয়ে আমাদের এই পোস্ট। এই পোস্টে সূরা হাশরের শেষ তিন আয়াতের ফজিলত সম্পর্কে বিস্তারিত লেখার চেষ্টা করেছি।

হযরত হাসান (রহঃ) হতে বর্ণিত, তিনি বলেন, যে ব্যক্তি সকালে সূরা হাশরের শেষ তিন আয়াত পাঠ করে, সে যদি সেই দিন মৃত্যুবরণ করে, তবে তাকে শাহাদাতের সীল (টিকিট) প্রদান করা হবে এবং সন্ধ্যায় তা পাঠ করলে সে যদি সেই রাতে মৃত্যুবরণ করে, তবে তাকে শাহাদাতের সীল লাভ প্রদান করা হবে। (হাদিস সহীহ্)

সূত্র : সুনান আদ-দারেমী হাদিস নাম্বার : ৩৪৬২, ইসলামী ফাউন্ডেশন।

হযরত মাকাল বিন ইয়াসার (রা,) থেকে বর্ণিত হাদিসে রাসুল (সা.) বলেন, ‘যে ব্যক্তি সকাল বেলা তিন বার “আউজুবিল্লাহিস সামীয়িল আলীমি মিনাশ শাইতানির রাজীম” পড়বে। এরপর সুরা হাশরের শেষ তিন আয়াত তিলাওয়াত করবে। আল্লাহ তাআলা উক্ত ব্যক্তির জন্য ৭০ হাজার ফেরেস্তা নিযুক্ত করেন; যারা উক্ত ব্যক্তির জন্য সন্ধ্যা পর্যন্ত মাগফিরাতের দোয়া করতে থাকে। আর এ সময়ের মাঝে যদি লোকটি মারা যায়, তাহলে সে শহীদের মৃত্যু লাভ করবে। আর যে ব্যক্তি এটি সন্ধ্যার সময় পড়বে, তাহলে তার একই মর্যাদা রয়েছে। (হাদিস জইফ)

সূত্র : (সুনানে তিরমিজি হাদিস : ৩০৯০, আবু দাউদ হাদিস : ২৯২২, মুসনাদ আহমদ হাদিস : ১৯৭৯৫, কানজুল উম্মাল, হাদিস : ৩৫৯৭)।

সূরা হাশরের শেষ তিন আয়াত আরবি বাংলা উচ্চারণ অর্থ সহ জেনে নিন

[৫৯:২২] আল হাশ্‌র

هُوَ اللَّهُ الَّذي لا إِلهَ إِلّا هُوَ عالِمُ الغَيبِ وَالشَّهادَةِ هُوَ الرَّحمنُ الرَّحيمُ

বায়ান ফাউন্ডেশন:
তিনিই আল্লাহ, যিনি ছাড়া কোন ইলাহ নেই; দৃশ্য-অদৃশ্যের জ্ঞাতা; তিনিই পরম করুণাময়, দয়ালু।

[৫৯:২৩] আল হাশ্‌র

هُوَ اللَّهُ الَّذي لا إِلهَ إِلّا هُوَ المَلِكُ القُدّوسُ السَّلامُ المُؤمِنُ المُهَيمِنُ العَزيزُ الجَبّارُ المُتَكَبِّرُ سُبحانَ اللَّهِ عَمّا يُشرِكونَ

বায়ান ফাউন্ডেশন:
তিনিই আল্লাহ; যিনি ছাড়া কোন ইলাহ নেই, তিনিই বাদশাহ, মহাপবিত্র, ত্রুটিমুক্ত, নিরাপত্তাদানকারী, রক্ষক, মহাপরাক্রমশালী, মহাপ্রতাপশালী, অতীব মহিমান্বিত, তারা যা শরীক করে তা হতে পবিত্র মহান।

[৫৯:২৪] আল হাশ্‌র

هُوَ اللَّهُ الخالِقُ البارِئُ المُصَوِّرُ لَهُ الأَسماءُ الحُسنى يُسَبِّحُ لَهُ ما فِي السَّماواتِ وَالأَرضِ وَهُوَ العَزيزُ الحَكيمُ

বায়ান ফাউন্ডেশন:
তিনিই আল্লাহ, স্রষ্টা, উদ্ভাবনকর্তা, আকৃতিদানকারী; তাঁর রয়েছে সুন্দর নামসমূহ; আসমান ও যমীনে যা আছে সবই তার মহিমা ঘোষণা করে। তিনি মহাপরাক্রমশালী, প্রজ্ঞাময়।

এগুলো পড়তে পারেন –

ছানা দোয়া বাংলা উচ্চারণ ও অর্থ | নামাজের সানা আরবি বাংলা উচ্চারণ

রুকুর তাসবিহ – rukur tasbih

আয়াতুল কুরসি বাংলা উচ্চারণ ও অর্থ | আয়াতুল কুরসির ফজিলত

দোয়া কুনুত আরবী বাংলা উচ্চারন ও অর্থ সহ

দোয়া মাসুরা বাংলা উচ্চারণ | দোয়া মাসুরা অর্থ

এই পোস্ট সম্পর্কে আপনাদের যেকোনো মতামত কমেন্টে লিখতে পারেন। আর আমার ফেসবুক পেজ লাইক দিয়ে আমার সাথে যুক্ত থাকুন।

পোস্টটি শেয়ার করতে ভুলবেন না।

ট্যাগ সমূহ : সূরা হাশরের শেষ তিন আয়াত আরবি, সুরা হাশরের শেষ তিন আয়াতের ছবি, সূরা হাশরের শেষ তিন আয়াতের ফজিলত।


Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *